মোদির চাপেই ব্যাঙ্কের ঋণ শোধ করতে চাইছে বিজয় মালিয়া!

IMAGE : BUSINESS TODAY

নিজস্ব প্রতিবেদন: প্রায় ৯০০০ কোটি টাকা ব্যাঙ্ক জালিয়াতি করে ২০১৬ সালের ২ মার্চ ভারত থেকে বিদেশে পালিয়েছিলেন মদ বিক্রেতা বিজয় মালিয়া।এরপর বিরোধীরা মোদী সরকারের বিরুদ্ধে বিজয় মালিয়াকে পালাতে সাহায্য করার অভিযোগ তোলে।তবে এই অভিযোগ খারিজ করে দেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। তিনি জানান, তাঁর সরকারের তৈরি করা কড়া আইনের জন্য বিজয় মালিয়ার সম্পত্তি বাজেয়াপ্ত করা সম্ভব হয়েছে।

জানা যাচ্ছে, ইতিমধ্যে বিজয় মালিয়া বিরুদ্ধে  দায়ের হয়েছে কয়েক হাজার মামলা।এমনকি তার অনেক সম্পত্তি বাজেয়াপ্ত করা হয়েছে।একসময় সম্পত্তি হাতছাড়া হওয়ার আশঙ্কায় দেশের ফেরার জন্যও তৎপরও হয়েছিলেন তিনি ।সূত্রের খবর, র প্রায় সাড়ে ১৩ হাজার কোটি টাকার সম্পত্তি বাজেয়াপ্ত করেছে এনফোর্সমেন্ট ডিরেক্টরেট (ইডি)। এরপরই তাকে বিভিন্ন সময় শর্ত সাপেক্ষে ঋণ শোধের বিষয় নিয়ে টুইট করতে দেখা যায়।

তবে এবার করোনা পরিস্থিতিকে হাতিয়ার করতে চায় মালিয়া। কেননা এই সময় আর্থিক সমস্যায় ভুগছে ভারত। আর তাই প্রধানমন্ত্রীর ২০লক্ষ টাকা আর্থিক প্যাকেজ ঘোষনার পর এদিন সব বকেয়া ঋণ শোধ করতে চেয়ে তিনি টুইট করেন। টুইটে লেখেন, বারবার ঋণ পরিশোধ করতে চাইলেও উপেক্ষা করা হয়েছে। দেশের এই কঠিন পরিস্থিতিতে ১০০ শতাংশ ঋণ শোধ করতে চাইছি।আমাকে ঋণ শোধ দেওয়ার সুযোগ দিয়ে  আইনি জটিলতা থেকে মুক্তি দেওয়া হোক। অনেকেই মনে করছেন  মোদি সরকারের নেওয়া পদক্ষেপের জেরেই বকেয়া ঋণ পরিশোধ করে আইনি জটিলতার পাশাপাশি বাজেয়াপ্ত সম্পত্তি ফেরৎ পেতে চাইছেন মালিয়া।  

 

You may Like this:

শ্রমিকদের স্যুটকেস বহন করার পরামর্শ দিয়ে রাহুলকে নাটকবাজ বলে কটাক্ষ নির্মলার
অজিত ডোভাল হলেন ভারতের জেমস বন্ড, তার নেতৃত্বে বড় সাফল্যে পেল দেশ
বিকলাঙ্গ সন্তানের কাছে যেতে সাইকেলটি নিচ্ছি, ক্ষমা চেয়ে চিঠি শ্রমিকের
বড় সাফল্য পেল ভারতীয় সেনা, গ্রেফতার লস্কর-ই-তৈবার শীর্ষস্থানীয় জঙ্গি
মোদির নেতৃত্বে বিশ্বকে পথ দেখাচ্ছে ভারত, মেনে নিলেন বিল গেটস
দূর্ঘটনার কবলে পরিযায়ী শ্রমিকেরা, দুটি ট্রাকের মুখোমুখি সংঘর্ষে মৃত ২৪
লকডাউনে দেওয়া যাবে না মাইকে আজান, রায় দিল আদালত
যেকোন ভারতীয় ৩ বছরের জন্যে সেনায় যোগ দিতে পারবে
পরিযায়ী শ্রমিকদের বাড়ি ফেরানোর জন্য মোদীর প্রশংসা করলেন অধীর
যখন মোদিজি বলেন তখন পুরো বিশ্ব শোনে, প্রশংসায় বলিউড