‘কখনও বলিনি তৃণমূলে ফিরব’ ভোলবদল TMC থেকে আসা বিজেপি নেতার

একসময় নির্বাচনের আগে  ঘাসফুল ছেড়ে গেরুয়া শিবির যাওয়ার রীতিমতো হিড়িক ছিল। প্রতিদিনই কোন না কোন নেতা তৃণমূল ছেড়ে বিজেপিতে যোগ দিতেন। তবে একুশে বিধানসভা নির্বাচনে জনগণের রায়ে বিজেপি মোট ৭৭টি আসনে আটকে যায়। ফলাফল আগের চেয়ে ভাল হলেও তা আশানুরূপ হয়নি। তবে ফলাফল ঘোষণার পর থেকে দলবদলুরা আবার তৃণমূলে ফিরে যেতে চাইছে।

কয়েকদিন আগেই মুকুল রায় তৃণমূলে যোগ দিয়েছেন। আর তারপর থেকে বিজেপি থেকে দলত্যাগের তালিকা দীর্ঘ হয়েছে। বলা বাহুল্য, যারা দল ত্যাগ করতে চাইছ্হেন তারা সকলেই তৃণমূল থেকে বিজেপিতে যোগ দিয়েছিলেন। ইতোমধ্যে দল ত্যাগ করেছেন বনগাঁর প্রাক্তন খাদ্য কর্মাধ্যক্ষ  রতন ঘোষ। আবার রাজীব বন্দ্যোপাধ্যায় তৃণমূলে ফিরতে চাইছেন। শুধু তাই নয়, রাজ্য কিষাণ মোর্চার আইনজীবী দেবযানী দাশগুপ্ত ‘মমতাকে প্রধানমন্ত্রী হিসাবে দেখতে চান’ এই টুইট করে দল ত্যাগ করেছেন। তবে তৃণমূলের নিম্ন স্তরের কর্মীরা এই দলবদলুদের আবারও দলে ফিরিয়ে নিতে চায়্না । বলা বাহুল্য, তৃণমূলে মুকুল রায়ের প্রত্যাবর্তনের বিষয়ে অর্জুন সিং তীব্র প্রতিক্রিয়া জানালেও তাঁর আত্মীয় সুনীল সিং যথেষ্ট নরম ছিলেন। তাঁর মতে মুকুল রায় একজন বড় নেতা। তাঁর দল পরিবর্তন বিজেপিকে অনেক ক্ষতি করবে। শুধু তাই নয়, তিনি তৃণমূলে যোগ দেওয়ার ইঙ্গিতও দিয়েছিলেন।

আর তার পর থেকে নোয়াপাড়ার এই প্রাক্তন বিধায়কের নামে একাধিক পোস্টার দেখা গেছে নোয়াপাড়া সংলগ্ন এলাকায়। এই পোস্টারগুলো লাগিয়েছিলেন মহিলা তৃণমূল কংগ্রেস কর্মীরা। অর্জুন সিংয়ের আত্মীয় সুনীল সিংহের দলে ফিরে আসার সম্ভাবনার বিরোধিতা করে এই পোস্টার লেখা হয়েছিল। পোস্টারে লেখা ছিল, বাংলা বিদ্বেষী সুনীল সিংকে তৃণমূলে নেওয়া চলবে না। তোলাবাজ, দাঙ্গাবাজ সুনীল সিংকে তৃণমূলে নেওয়া মানছি না। গারুলিয়া শহরের তৃণমূল সভাপতি পঙ্কজ দাসও স্পষ্ট জানিয়ে দিয়েছেন যে সুনীল সিং দলে ফিরে গেলে তিনি বিরোধিতা করবেন। প্রসঙ্গত, সুনীল সিং বিজেপির টিকিটে নোয়াপাড়া থেকে একুশে নির্বাচনে তৃণমূলের মঞ্জু বসুর কাছে পরাজিত হয়েছিলেন। এলাকায় তাঁর বিরুদ্ধে যে ক্ষোভ তা স্পষ্ট। তবে বিক্ষোভের পর নিজের ভোল বদলে নোয়াপাড়ার প্রাক্তন বিধায়ক সুনীল সিং বলেন, আমি কখনও তৃণমূলের ফিরে যাওয়ার কথা বলি নি। 

হ্যাঁ, আমি অনুদান দিতে ইচ্ছুক

    You May Like this Article
 

You May Like

‘নিজের নাক কেটে পরের যাত্রা ভঙ্গ করেছে বিজেপি কর্মী’, বিস্ফোরক শুভেন্দু
তৃণমূল প্রাইভেট লিমিটেড কোম্পানি বলেই হেরেও মুখ্যমন্ত্রী মমতা: শুভেন্দু
ঠাঁই নেই কেন্দ্রীয় মন্ত্রিসভায়, রাজ্য যুব মোর্চার পদ থেকে ইস্তফা সৌমিত্রর
‘মানুষ বোকা নয়’, যশ-শ্রাবন্তী-পায়েলকে নিয়ে সমালোচনায় বিজেপি নেত্রী কাঞ্চনা
মুখে লিউকোপ্লাস্ট লাগিয়ে বসে থাকুন, বিরোধীদের তীব্র কটাক্ষ জ্যোতিপ্রিয় র
আজ থেকে অধিবেশন, ভেবে চিন্তে আপাতত পদ্ম সারিতেই বসবেন মুকুল
হোয়াটসঅ্যাপ এর বার্তা ফাঁস করে ষড়যন্ত্রর প্রমাণ দিলেন দেবাংশু !
‘রাজ ভবনে কেন দেবাঞ্জনের দেহরক্ষী?’রাজ্যপালের সঙ্গে ছবি প্রকাশ করে তোপ তৃণমূলের
‘পরকীয়া’য় বেশি মন রাজ্যপালের, বিতর্কিত দাবি মদন মিত্রের
ভোটার সংখ্যা ৬৭৬, কিন্তু ভোট পড়ল ৭৯৯! নন্দীগ্রামের নথি নিয়ে তোলপাড় রাজ্য