‘কালো কুকুর চিৎকার করে’, ধনখড় প্রসঙ্গে বিতর্কিত মন্তব্য মদন মিত্রের

এবার রাজ্যপাল জগদীপ ধনখড়কে নিয়ে বিতর্কিত মন্তব্য করলেন তৃণমূল বিধায়ক মদন মিত্র। সোমবার তিনি বলেন, ‘রাজ্যপাল যেখানেই যান, সেখানেই ওনাকে কালো কাপড় দেখানো হয়। যদি এটা কোনও সিনেমার দৃশ্য হত, তাহলে কালো কুকুরকে চিৎকার করতে দেখানো হত। আমি সবাইকে অনুরোধ করব যে তাঁরা যেন কখনও কখনও হলুদ, লাল আর সোনালী রঙের কাপড় দেখাক। ধনখড় যেখানেই যান, সবসময় ওনাকে কুকুরের মতো কালো কাপড় কেন দেখানো হয়?

বিধায়ক আরও বলেন, যখন ছোট ছিলাম পাড়ার লোকেরা বলতেন, কালো কুকুর চিৎকার করে। জানি না, জনতা ওঁকে কী ভাবেন! দিল্লী গিয়ে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহের সঙ্গে জোড়া বৈঠক সেরেছেন রাজ্যপাল জগদীপ ধনকড়। দিল্লী থেকে ফিরেই উত্তরবঙ্গ সফরের ঘোষণা করেছিলেন রাজ্যপাল। সোমবার দুপুরে বাগডোগরা বিমানবন্দরে পৌঁছিয়ে সাংবাদিকদের মুখোমুখি হয়েছিলেন রাজ্যপাল। সেখানে তিনি জানান, সোমবার কার্শিয়াং হয়ে দার্জিলিং যাবেন তিনি। পাশাপাশি সাংবাদিকদের সামনে, রাজ্য সরকারের বিরুদ্ধে কিছুটা ক্ষোভও উগরে দেন রাজ্যপাল জগদীপ ধনকড়।

এরপর কার্শিয়াং হয়ে দার্জিলিং যাওয়ার পথে, কার্শিয়াং-র কাছেই রাজ্যপালের কনভয়ের সামনে কালো পতাকা নিয়ে বিক্ষোভে সামিল হলে বেশ কয়েকজন। এপ্রসঙ্গে কার্শিয়াং ব্লকের তৃণমূলের সম্পাদক সমৃত ছেত্রী জানিয়েছেন, ‘দিল্লীতে গিয়ে রাজ্যপাল বাংলার অনেক অপমান করেছেন। সঙ্গে নিজের পদের অমর্যাদাও করেছেন। সেইকারণেই আমরা বিক্ষোভ প্রদর্শন করলাম।’ এই কালো পতাকা নিয়ে বিক্ষোভে সম্পর্কে বলতে গিয়েই রাজ্যপালের সম্পর্কে বিতর্কমূলক বক্তব্য দিলেন মদন মিত্র।

হ্যাঁ, আমি অনুদান দিতে ইচ্ছুক

    You May Like this Article
 

You May Like

‘নিজের নাক কেটে পরের যাত্রা ভঙ্গ করেছে বিজেপি কর্মী’, বিস্ফোরক শুভেন্দু
তৃণমূল প্রাইভেট লিমিটেড কোম্পানি বলেই হেরেও মুখ্যমন্ত্রী মমতা: শুভেন্দু
ঠাঁই নেই কেন্দ্রীয় মন্ত্রিসভায়, রাজ্য যুব মোর্চার পদ থেকে ইস্তফা সৌমিত্রর
‘মানুষ বোকা নয়’, যশ-শ্রাবন্তী-পায়েলকে নিয়ে সমালোচনায় বিজেপি নেত্রী কাঞ্চনা
মুখে লিউকোপ্লাস্ট লাগিয়ে বসে থাকুন, বিরোধীদের তীব্র কটাক্ষ জ্যোতিপ্রিয় র
আজ থেকে অধিবেশন, ভেবে চিন্তে আপাতত পদ্ম সারিতেই বসবেন মুকুল
হোয়াটসঅ্যাপ এর বার্তা ফাঁস করে ষড়যন্ত্রর প্রমাণ দিলেন দেবাংশু !
‘রাজ ভবনে কেন দেবাঞ্জনের দেহরক্ষী?’রাজ্যপালের সঙ্গে ছবি প্রকাশ করে তোপ তৃণমূলের
‘পরকীয়া’য় বেশি মন রাজ্যপালের, বিতর্কিত দাবি মদন মিত্রের
ভোটার সংখ্যা ৬৭৬, কিন্তু ভোট পড়ল ৭৯৯! নন্দীগ্রামের নথি নিয়ে তোলপাড় রাজ্য