নদীয়ার চাকদহ শহরে রহস্যজনক মৃত্যু, খুনের অভিযোগ তৃনমূলের বিরুদ্ধে

একুশের নির্বাচন ঘিরে বাংলায় আবারও প্রাণহানির ঘটনা সামনে এল। পঞ্চম দফার ভোট মেটার পরই হিংসার ঘটনা ঘটল নদিয়ার চাকদহ শহরে। চাকদহর এক BJP কর্মীর দেহ উদ্ধার ঘিরে চাঞ্চল্য ছড়াল। মৃত BJP কর্মীর নাম দিলীপ কীর্তনিয়া। তাঁকে খুন করা হয়েছে বলে অভিযোগ উঠেছে তৃণমূলের বিরুদ্ধে।

চাকদাহর উত্তর এনায়েতপুর মণ্ডলপাড়া এলাকার এই ঘটনায় চাঞ্চল্য ছড়িয়েছে। অভিযোগ করা হয়েছে, যে শনিবার রাতে ওই BJP কর্মীকে বাড়ি থেকে ডেকে নিয়ে যান তৃণমূলের অঞ্চল সভাপতি দুলাল মণ্ডলের লোকজন। তারপর থেকেই তিনি নিখোঁজ ছিলেন বলে দাবি করা হয়েছে। ভোরবেলা বাড়ির উঠোনের কাছে তাঁর দেহ উদ্ধার হয়েছে।

এই ঘটনায় দুলাল মণ্ডলের বাড়িতে ভাঙচুর চালানো হয় বলে অভিযোগ উঠেছে। ঘটনার পর থেকে পলাতক দুলাল মণ্ডল। খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে যায় পুলিশ ও কেন্দ্রীয় বাহিনী। গোটা ঘটনা তদন্ত শুরু করেছে চাকদহ থানার পুলিশ।

চাকদহ বিধানসভার শিমুরালিতে বিজেপি কর্মীকে খুনের অভিযোগ। টায়ার জ্বালিয়ে ৩৪ নম্বর জাতীয় সড়ক অবরোধ করে প্রতিবাদ বিজেপির। চাকদহ ও পালপাড়ায় ট্রেন অবরোধও করা হয়। চাকদা থানা ঘেরাও করে বিক্ষোভ দেখায় বিজেপি কর্মীরা। তৃণমূলের বিরুদ্ধে খুনের অভিযোগ করেছে বিজেপি। গেরুয়া শিবির জানিয়েছে দিলীপ কীর্তনিয়া নামে ওই দলীয় কর্মীকে পিটিয়ে খুন করা হয়েছে।

হ্যাঁ, আমি অনুদান দিতে ইচ্ছুক

    You May Like this Article
 

You May Like