মুকুল তৃণমূলে যোগ দিলেও কমেনি বিজেপি কর্মীদের মনোবল,স্পষ্ট নেট দুনিয়ায়

শুক্রবার BJP ছেড়ে তৃণমূলে যোগদান করেছেন মুকুল রায়। এই নেতার দল বদলে তোলপাড় রাজ্য রাজনৈতিক। প্রসঙ্গত, প্রায় তিন বছর নয় মাস পর তৃণমূলে ফিরলেন মুকুল রায়। মমতার উপস্থিতিতে তৃণমূল ভবনে ‘ঘরে ফিরলেন BJP-র মুকুল’। BJP সর্বভারতীয় সহ-সভাপতি পদে ছিলেন মুকুল। পুরনো দলে ফিরেই প্রাক্তন দল নিয়ে বিস্ফোরক মুকুল রায়। বলেন, ‘BJP করতে পারছিলাম না, করব না তাই তৃণমূলে’।  কেন ছাড়লাম পার্টি তা বিস্তারিতভাবে লিখিত জানাব।

বলা বাহুল্য মুকুল রায় একজন দক্ষ রাজনীতিবিদ।তার এই দল ত্যাগের জন্য কিন্তু সাধারণ মানুষ মনে করছেন অনেকে বড় ক্ষতি গেরুয়া শিবিরের হয়ে গেছে। কিন্তু গেরুয়া শিবিরের কর্মীরা এ কথা মানতে রাজি নন। তাদের বক্তব্য বিজেপি দল সমর্থনরা‌ কেউ মুকুল রায়কে ভালোবেসে বিজেপি দল সমর্থন করে না। বিজেপি দলের সকল সমর্থকেরা মাননীয় প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর জন্য ভারতীয় জনতা পার্টির পাশে থেকেছেন, আর ভবিষ্যতে থাকবেন বলে তারা আশাবাদী। কে এলো বা কে গেল তাতে‌ দলের কোন‌ ক্ষতি হবে না তাদের তরফ থেকে পরিষ্কার ভাবে জানানো হচ্ছে সোশ্যাল মিডিয়ায়।।

এই প্রসঙ্গে প্রশ্ন করা হলে ,CPI নেতা সুজন চক্রবর্তী বলেন, ‘যিনি তৃণমূলে স্বচ্ছন্দ তিনি BJP তেও স্বচ্ছন্দ বোধ করবেন। আবার যিনি BJP-তে স্বচ্ছন্দ তিনি তৃণমূলে স্বচ্ছন্দ বোধ করবেন। এটাই স্বাভাবিক।’ বাম-কংগ্রেসের দীর্ঘদিনের অভিযোগ, বাংলায় BJP এবং তৃণমূল নিজেদের মধ্যে সমঝোতা করে দল চালাচ্ছে। এবার মুকুলের দল পরিবর্তনে এই দাবিকেই আরও জোরালভাবে সামনে রাখছেন বাম-কংগ্রেস নেতারা। অন্যদিকে, কংগ্রেস নেতা প্রদীপ ভট্টাচার্য বলেন, ‘মুকুল মহাজ্ঞানী। এত বড় বড় নেতারা কী বলছেন, কী করছেন তা আমাদের মতো মানুষের পক্ষে বোঝা সম্ভব নয়।’

হ্যাঁ, আমি অনুদান দিতে ইচ্ছুক

    You May Like this Article
 

You May Like

‘নিজের নাক কেটে পরের যাত্রা ভঙ্গ করেছে বিজেপি কর্মী’, বিস্ফোরক শুভেন্দু
তৃণমূল প্রাইভেট লিমিটেড কোম্পানি বলেই হেরেও মুখ্যমন্ত্রী মমতা: শুভেন্দু
ঠাঁই নেই কেন্দ্রীয় মন্ত্রিসভায়, রাজ্য যুব মোর্চার পদ থেকে ইস্তফা সৌমিত্রর
‘মানুষ বোকা নয়’, যশ-শ্রাবন্তী-পায়েলকে নিয়ে সমালোচনায় বিজেপি নেত্রী কাঞ্চনা
মুখে লিউকোপ্লাস্ট লাগিয়ে বসে থাকুন, বিরোধীদের তীব্র কটাক্ষ জ্যোতিপ্রিয় র
আজ থেকে অধিবেশন, ভেবে চিন্তে আপাতত পদ্ম সারিতেই বসবেন মুকুল
হোয়াটসঅ্যাপ এর বার্তা ফাঁস করে ষড়যন্ত্রর প্রমাণ দিলেন দেবাংশু !
‘রাজ ভবনে কেন দেবাঞ্জনের দেহরক্ষী?’রাজ্যপালের সঙ্গে ছবি প্রকাশ করে তোপ তৃণমূলের
‘পরকীয়া’য় বেশি মন রাজ্যপালের, বিতর্কিত দাবি মদন মিত্রের
ভোটার সংখ্যা ৬৭৬, কিন্তু ভোট পড়ল ৭৯৯! নন্দীগ্রামের নথি নিয়ে তোলপাড় রাজ্য